কিছু কথা



এই সাইটে দেয়া সকল ইনকাম করার টিপস,প্রক্রিয়া/পদ্ধতি ও এখানে দেয়া ইনকাম করার সাইট সব বিশ্বস্ত । এখানে কোন ভুয়া টিপস বা সাইট নিয়ে পোষ্ট করা হয় না ।। ইনকাম করার সকল পদ্ধতি এখানে শিখানো হবে এবং সেই পদ্ধতি গুলো ১০০% সত্যি । যে সাইট গুলো সত্যি পেমেন্ট দেই শুধুমাত্র সেই সাইট গুলো থেকে কিভাবে ইনকাম করবেন তা নিয়ে এখানে পোষ্ট করা হয়। তাই এখানকার সকল ইনকাম করার রাস্তা আপনি নির্দিধায় অনুশরন করতে পারেন।

কোন সমস্যায় পরলে কমেন্ট করবেন, আর ছোট খাট হেল্প এর জন্য আমার দেয়া রিফারেল লিংক দিয়ে সকল ইনকাম করার সাইটে রেজিস্ট্রেশন করবেন ।
***নতুন নতুন ইনকাম করার ওয়ে শিখতে আমাদের সাথেই থাকুন।

Home » , » টাকা ইনকামের বৈধ ও বিশ্বাসযোগ্য পথসমূহ

টাকা ইনকামের বৈধ ও বিশ্বাসযোগ্য পথসমূহ

আমি আজ আপনাদেরকে পরিচয় করে দিবো কিছু বৈধ এবং প্রোফেসনাল ওয়েবসাইটের সাথে, যেখান থেকে আপনারা ঘরে বসে কাজ করার মাধ্যমে প্রচুর পরিমাণে টাকা ইনকাম করতে পারবেন ।














টাকা ইনকামের বৈধ ও বিশ্বাসযোগ্য পথসমূহ :
  • ElanceoDesk : এই ওয়েবসাইট গুলো মূলত ফ্রিলাঞ্চিং সাইট । এখানে একজন ফ্রিলাঞ্চার তাৎক্ষনিক ফ্রিলাঞ্চ জব বা চাকুরী পেতে পারে । আর এই জবগুল হবে ঘণ্টাচুক্তি ভিত্তিক(Hourly) এবং নির্দিষ্ট বাজেট ভিত্তিক (Fixed Price) । এই সাইট থেকে আপনি টাকা তুলতে পারবেন স্ক্রিল, পেওনিয়ার অথবা ব্যাংক একাউন্টের মাধ্যমে ।
  • Fiverr : এই সাইটটিতে মূলত গিগ পোস্ট করে টাকা ইনকাম করা যায় । একজন ফ্রিলাঞ্চারকে তার দক্ষতা অনুযায়ী সর্বনিম্ন একটি গিগ পোস্ট করতে হবে হবে। পরবর্তীতে ক্লাইন্টরা তাদের চাহিদামতো উক্ত গিগের জন্য অর্ডার করবে । এই সাইট থেকে টাকা তুলতে চাইলে আপনি পেপাল একাউন্ট এবং আপনার পেওনিওর একাউন্ট ব্যাবহার করতে পারবেন ।
  • Freelancer : এটি বলা চলে পৃথিবীর মধ্যে সবচেয়ে বড় ফ্রিলাঞ্চিং মার্কেটপ্লেস। এই ওয়েবসাইটে প্রচুর পরিমাণে জব পোস্ট হয়ে থাকে। যার ফলে আপনি আপনার কঠোর পরিশ্রমের মাধ্যমের ফিক্সড অথবা ঘন্টাচুক্তি কাজের দ্বারা অনেক টাকা ইনকাম করতে পারবেন । তবে এক্ষেত্রে আপনাকে অবশ্যই দক্ষ ফ্রিলাঞ্চার হতে হবে । আর ফ্রীলাঞ্চার ডট কম-এর নিজস্ব মেসেঙ্গার আছে যা আপনি আপনার এন্ড্রয়েড ও আইফন এর পাশাপাশি আপনার কম্পিউটারে ব্যবহার করতে পারবেন ।
  • Guru : এই ওয়েবসাইটটি পুরপুরি oDesk, Elance এবং Freelancer এর মতই । এখানে আপনাকে ক্লাইন্টের প্রকাশিত জবসমূহতে বিড করে কাজ ধরতে হবে।
  • Tutor : টিউটর ডট কম-এ আপনি ছাত্রদের Homework সম্পন্ন করতে সাহায্য করার মাধ্যমে টাকা ইনকাম করতে পারবেন । এই সাইটের তিনটি আলাদা আলাদা মেম্বারশিপ প্লান বা পাকেজ আছে, যা ছাত্ররা ব্যবহার করার মাধ্যমে আপনার থেকে সাপোর্ট নিবে আর পেমেন্ট করবে । এই সাইটটিতে কাজ করার জন্য অবশ্যই আপনাকে পড়াশোনায় খুব ভালো আর দক্ষ হতে হবে । কারন আপনি না জানলে আপনি কাউকেই পড়াতে পারবেন না ।
  • SutterStock: এটি এমন একটি সাইট যেখানে একজন ফটোগ্রাফার তার তোলা ভাল মানের আর সুন্দর ছবিগুলো বিক্রয় করতে পারবে । এই ওয়েবসাইটে আপনি যদি আপনার তোলা ছবিগুলো বিক্রয় করে টাকা ইনকাম করে টাকা ইনকাম চান তাহলে আপনাকে অবশ্যই একটি মিনিমাম সাইজের ছবি আপলোড করতে হবে। আপাতত সাটারস্টক সর্বনিম্ন ৪ মেগাপিক্সেল সাইজের ছবি সাপোর্ট করে । সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হল, আপনি কখনই ইন্টারনেট থেকে ডাউনলোড করে সেই ছবিটি আপলোড করতে পারবেন না। যদি অন্য কার কপিরাইট করা চবি আপনি ব্যবহার করার চেষ্টা করেন তাহলে কোন পূর্ব নোটিশ ছাড়াই আপনার একাউন্ট চিরস্থায়ীভাবে বন্ধ করে দিতে পারে ।
  • Helium : এখানে আপনি আপনার লিখিত যেকোনো ভাল মানের কন্টেন্টসমুহ পাবলিশ করার মাধ্যমে টাকা ইনকাম করতে পারবেন । তবে আপনাকে অবশ্যই নিজের লেখা কন্টেন্ট বা পোস্টসমূহ পাবলিশ করতে হবে । আপনি ভুল করেও অন্যের লেখা কপি করে নিজের নামেচালিয়ে দিরতে পারবেন না । এতে আপনার এক্উন্ট নষ্ট হওয়ার রিস্ক থেকে জায় এবং ইনকাম করাটাও সম্ভব হবে না। মনে রাখবেন যে, কোন কিছুই সহজে পাওয়া যায়না। কোন কিছু অর্জন করার জন্য আপনাকে অবশ্যই কঠোর পরিশ্রম করতে হবে ।
  • YouTube : YouTube –এ আপনি ভিডিও আপলোড করার মাধ্যমে টাকা ইনকাম করতে পারবেন । আপনি হয়তো ভাবছেন যে, ইউটিউব থেকে আবার কিভাবে টাকা ইনকাম করা সম্ভব? আমি বলছি...... যেমন ধরুন আপনি Clickbank অথবা Amazon এর একটি আফিলিয়াট প্রোডাক্ট লিঙ্ক নিয়ে যদি আপনি আপনার ইউটিউব ভিডিও এর description এ ব্যবহার করেন তাহলে নিঃসন্দেহে আপনি ওই লিঙ্ক এ ট্রাফিক পাবেন । সুতরাং এটাও সম্ভব যে আপনি উক্ত লিঙ্ক থেকে সেল পাবেন, আর যা আপনাকে ভালো অঙ্কের টাকা ইনকাম করতে সাহায্য করবে ।
  • iTunesPlay Store : iTunes ও Google Play Store-এ আপনি আপনার তৈরিকৃত আইওএস(IOS) ও এন্ড্রএড(Android) সফটওয়্যার বিক্রয় করে ভালো অঙ্কের টাকা ইনকাম করতে পারবেন । যেমন ধরুন আপনার সফটওয়্যার এর মুল্য মাত্র $১ এবং আপনার সফটওয়্যারটি মাসে ১০০০ বার ডাউনলোড হয় । তাহলে আপনার ইনকাম দাড়ায় মাসে $১০০০ । আমি মনে করি আমাদের মতো বাংলাদেশীদের জন্য এটা খুব একটা কম নয় । তবে এই পথ থেকে ইনকাম করার জন্য আপনাকে অবশ্যই প্রোগ্রামার হতে হবে ।
  • Microworkers : ফ্রিলাঞ্চিং মার্কেটপ্লেসে যদি বিড করার পাশাপাশি ছোট ছোট কাজ করে সামান্য পরিমাণে টাকা ইনকাম করতে চান তাহলে আপনি এই সাইটটি ব্যবহার করতে পারেন । এই সাইটের মিনিমাম মানে সর্বনিম্ন পেমেন্ট এমাউন্ট হল $৯ ।
  • TextBroker : টেক্সটব্রোকারে আপনি আপনারা আর্টিকেল বিক্রয় করে টাকা ইনকাম করতে পারেন ।
  • Amazon Web Store : একখানে আপনি আপনার নিজস্ব একটি স্টোর তৈরি করে আপনার প্রোডাক্ট বিক্রয় করে টাকা ইনকাম করতে পারেন । এখান থেকে আপনি আপনার প্রডাক্টের জন্য ইন্টারন্যাশনাল কাস্টমার পাবেন বলে আশা রাখি ।
  • HubPages : হাবপেজে আপনি টিপস, রিভিও এবং কনটেন্ট পাবলিশ করার মাধ্যমে টাকা ইনকাম করতে পারবেন । হাবপেজ মূলত Google Adsense এর একটি পার্টনার সাইট , সুতরাং ভালো কনটেন্ট হলে আপনি হাবপেজের সহায়তায়, অ্যাডসেন্স থেকে ভালো টাকা পেতে পারেন ।
  • Google Adsense : আপনার যদি নিজের ওয়েবসাইট থাকে, তাহলে আপনি আপনার ওয়েবসাইট-এ গুগল আদসেন্সে-এর বিজ্ঞাপন ব্যবহার করে প্রচুর পরিমাণে টাকা ইনকাম করতে পারবেন ।
  • ClickBank & ClickSure : এই দুইটি সাইট হলো অ্যাফিলিয়েট সাইট । এখানে আপনি নিজের পুরপুরি অথবা অন্যদের প্রোডাক্টের সেল করে একটি নির্দিষ্ট পরিমানের কমিশন পেতে পারেন ।



আজ এ পর্যন্তই থাক । আগামি পর্ব থেকে চেষ্টা করব এই সকল ওয়েবসাইটে কিভাবে কাজ করবেন তার টিউটোরিয়াল প্রকাশ করতে । এই পোস্টটি আপনাদের কেমন লাগলো আশা করি কমেন্ট করে জানাবেন । আর কোন ভুল ত্রুটি থাকলে দয়া করে ক্ষমা সুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন । আমার লেখা পোস্টটি সময় দিয়ে পড়ার জন্য ধন্যবাদ ।

আপনারা যদি ইনকাম সম্পর্কে  বিস্তারিত জানতে  Online Income Tips এর সাথেই থাকুন।
কোন সমস্যা বা যেকোন হেল্প পেতে mail করুন : incometipsbd@gmail.com

অথবা Facebook Group




0 comments:

Post a Comment